অথবা, ভেদাঙ্ক কাকে বলে?
অথবা, ভেদাঙ্ক বলতে কী বুঝ?
অথবা, ভেদাঙ্কের সংজ্ঞা দাও।
অথবা, ভেদাঙ্ক ধারণাটি ব্যাখ্যা কর।
উত্তর ভূমিকা :
ভেদাঙ্ক বা ভেদ বিস্তার পরিমাপের একটি গুরুত্বপূর্ণ পরিমাপক। কোন তথ্যসারির গাণিতিক গড় থেকে তথ্য মানসমূহের ব্যবধানের বর্গের সমষ্টিকে মোট তথ্য সংখ্যা বা মোট গণসংখ্যা দ্বারা ভাগ করলে যে ভাগফল পাওয়া যায় তাকে ভেদাঙ্ক বলে।
ভেদাঙ্ক : অধ্যাপক আর. এ. ফিসার 1918 সালে সর্বপ্রথম ভেদাংকের ধারণা প্রদান করেন। তার মতে, কোন তথ্যসারির বেধ বা বিস্তার পরিমাণে ভেদাংক বিশ্লেষণ খুব গুরুত্বপূর্ণ। কোন তথ্যসারি বা কোন গণসংখ্যা নিবেশনের গাণিতিক গড় হতে তথ্যমানসমূহের ব্যবধান বা বিচ্যুতির বর্গের সমষ্টিকে মোট তথ্যসংখ্যা বা গণসংখ্যা দ্বারা ভাগ করলে যে মান পাওয়া যায়, তাকে ভেদাংক বলে। আর, ভেদাংকের ধনাত্মক বর্গ মূলকে পরিমিত ব্যবধান বলা হয় ।
প্রামাণ্য সংজ্ঞা : ভেদাংক বা ভেদ বিস্তার পরিমাপকের একটি গুরুত্বপূর্ণ পরিমাপক। কোন তথ্য সারির গাণিতিক গড় থেকে তথ্য মানসমূহের ব্যবধানের বর্গের সমষ্টিকে মোট তথ্যসংখ্যা বা মোট গণসংখ্যা দ্বারা ভাগ করলে যে ভাগফল পাওয়া যায় তাকে ভেদাংক বলে। বিশিষ্ট পরিসংখ্যানবিদ Loether and MeTavish এর মতে, “Variance is simply an average of squared deviations of scores from the arithmetic mean.” আবার পরিমিত ব্যবধানের বর্গকেও ভেদাংক বলা হয়। ভেদাংক নির্ণয়ের পদ্ধতি পরিমিত ব্যবধান নির্ণয়ের পদ্ধতির অনুরূপ। তবে ভেদাংক নির্ণয়ের সময় বর্গমূল (Square root) বাহির করতে হয় না। ভেদাংককে V দ্বারা প্রকাশ করা হয় ।
উপসংহার : পরিশেষে বলা যায় যে, ভেদাঙ্ক নির্ণয়ের পদ্ধতি পরিমিত ব্যবধান নির্ণয়ের পদ্ধতির অনুরূপ, তবে ভেদাঙ্ক নির্ণয়ের সময় বর্গমূল বাহির করতে হয় না।

admin

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!